সর্বশেষ সংবাদ:
ফুলবাড়ীয়ায় নবাগত ওসির সাথে সাংবাদিকদের মতবনিমিয় মোংলা বন্দরে যুক্ত হচ্ছে আরও ৩টি অত্যাধুনিক মোবাইল ক্রেন কালিয়াকৈরে চাঁদা তুলে রাস্তা মেরামত করেছে এলাকাবাসী জুড়ী উপজেলার আমতৈল নামক স্থানে প্রাইভেকার রেখে পালিয়েছে চোরাকারবারিরা মোংলায় গাঁজাসহ ২ জনকে আটক করেছে পুলিশ সিরাজদীখানে ৬ জনকে জরিমানা করেছে ভ্রাম্যমাণ আদালত ধোবাউড়ায় নিতাই নদীর বেড়িবাঁধ ভেঙ্গে ভেসে গেছে একটি বসতবাড়ি, ঝুঁকিতে রয়েছে প্রায় পনেরটি বাড়ি ধোবাউড়ায় আশ্রয়ন প্রকল্প পরিদর্শনে জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ এনামুল হক কালিয়াকৈরে ঢাকা-টাঙ্গাইল মহাসড়কে ট্রাফিক পুলিশের চেকপোস্ট বসিয়ে তল্লাশি ও মামলা মোংলা বন্দরের লক্ষ্যমাত্রার চেয়ে ২৯ কোটি টাকা বেশি রাজস্ব আদায়

ধোবাউড়ায় নিতাই নদীর বেড়িবাঁধ ভেঙ্গে ভেসে গেছে একটি বসতবাড়ি, ঝুঁকিতে রয়েছে প্রায় পনেরটি বাড়ি

(ভেঙ্গে যাওয়া বাঁধ দ্রুত মেরামত না করলে আবার নদীর জোয়ারে ভেসে যেতে পারে এই পনেরটি বসতবাড়ি)

ধোবাউড়া প্রতিনিধিঃ-   ময়মনসিংহের ধোবাউড়ায় দুইদিনের টানা বর্ষণে উপজেলার প্রায় ৩০ টি গ্রামে ব্যাপক বন্যার সৃষ্টি হয়। উজান থেকে নেমে আসা পাহাড়ী ঢলে নিতাই নদীর বেড়িবাঁধ ভেঙ্গে ১নং দক্ষিণ মাইজপাড়া ইউনিয়নে সীমাহীন ক্ষতিগ্রস্থ হয়েছে সাধারণ শ্রমজীবী মানুষ। উপজেলার দক্ষিণ মাইজপাড়া ইউনিয়নে চারটি স্থানে নিতাই নদীর বেড়িবাঁধ ভেঙ্গেছে।

সরজমিনে গিয়ে দেখা যায়, ইউনিয়নের সোহাগিপাড়া গ্রামে রহমতের বাজারের সাথে নিতাই নদীর বেড়িবাঁধ ভেঙ্গে একটি বসতবাড়ি ভাসিয়ে নিয়ে যায় এবং ঝুঁকিতে রয়েছে আরও প্রায় পনেরোটি বসতবাড়ি।

এছাড়াও ইউনিয়নের বল্লবপুর, দিঘল ভাগ ও নওয়াপাড়া গ্রামে পৃথক পৃথক স্থানে তিন জায়গায় বেড়িবাঁধ ভেঙ্গেছে।

এসমস্ত ভাঙ্গনের ফলে সোহাগিপাড়া, খাগঘড়া, বল্লবপুর, কড়ইগড়া, শানকলা, নওয়াপাড়া, দিঘল ভাগ, কাশিপুর, ঘিলাগড়া সহ প্রায় ২০ টি গ্রামের শ্রমজীবী মানুষের ফসলি জমি ও পুকুরের মাছ ভেসে গেছে ।

মৎস্য চাষিরা লাখ লাখ টাকা বিনিয়োগে মাছ চাষ করেছিল। অনেক চাষি ব্যাংক ও এনজিও থেকে ঋণ নিয়ে প্রকল্প স্থাপন করেছিল। ওইসব প্রকল্পে ভয়াবহ ক্ষতির সম্মুখীন হয়ে চাষিরা দিশেহারা হয়ে গেছে। ঢলে আসা বালিতে ভরে গেছে মাছের খামার, ফসলি জমি ও বীজতলা। ফলে মানসিকভাবে ভেঙে পড়েছেন অনেক চাষিরা।

দক্ষিণ মাইজপাড়া ইউপি চেয়ারম্যান ফজলুল হক বলেন, আমার ইউনিয়নে প্রায় চল্লিশ হাজার মানুষের বসবাস এই ইউনিয়নে ৪ টি স্থানে নিতাই নদীর বেড়িবাঁধ ভেঙ্গে গেছে, দ্রুত এই বাঁধ মেরামত না করলে এক শতাংশ জমির ফসল করা সম্ভব না, তাই আমি মাননীয় এমপি মহোদয় এবং উপজেলা চেয়ারম্যান এর দৃষ্টি আকর্ষণ করছি দ্রুত ভেঙ্গে যাওয়া বেড়িবাঁধ মেরামতের ব্যাবস্থা গ্রহণ করার জন্য ।

এবিষয়ে উপজেলা চেয়ারম্যান ডেভিড রানা চিসিম বলেন নিতাই নদীর বেড়িবাঁধ ভেঙ্গে সাধারণ মানুষ অনেক ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে, মাননীয় এমপি মহোদয়ের সাথে কথা হয়েছে যত দ্রুত সম্ভব ভেঙ্গে যাওয়া বেড়িবাঁধ মেরামত করার জন্য আমরা চেষ্টা করছি।

সংবাদটি শেয়ার করতে নিচের অপশনে ক্লিক করুন

More News Of This Category